ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই ২০২১, ১০:২০ অপরাহ্ন

ঈদের আগে-পরে ফেরিতে ট্রাক পারাপার বন্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদন
  • প্রকাশিত: সোমবার, ২২ জুলাই, ২০১৯

পবিত্র ঈদুল আজহার আগে-পরে ছয় দিন নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য ও কোরবানির পশুবাহী ট্রাক ছাড়া সাধারণ ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যান ফেরিতে পারাপার বন্ধ থাকবে।

আজ রোববার ঢাকায় বিদ্যুৎ ভবনে পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে লঞ্চ, ফেরি ও অন্যান্য জলযান সুষ্ঠুভাবে চলাচল এবং যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণ সংক্রান্ত সভায় এসব সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

সভায় সিদ্ধান্ত হয়, রাতের বেলায় সব মালবাহী জাহাজ ও বালুবাহী বাল্কহেড চলাচল বন্ধ রাখতে হবে। ঈদের আগে ৫ দিন ও পরের ৫ দিন পর্যন্ত দিনের বেলায় সকল বালুবাহী বাল্কহেড চলাচল বন্ধ থাকবে।

প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, যাত্রীদের নিরাপদ যাতায়াতে গত ঈদুল ফিতরের সময় নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় একটি টিম ওয়ার্কের মাধ্যমে ভালো কাজ করেছিল। এবারের ঈদুল আজহায়ও সকলে মিলে ঈদ যাত্রাকে আরও নিরাপদ রাখতে চাই। তিনি বলেন, অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে ফেরি চলাচলে বিঘ্ন ঘটলেও সকলকে আরও দায়িত্ব নিয়ে কাজ করতে হবে। কোরবানির পশু নিয়ে নৌপথে যাতে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে থাকে সেদিকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে বেশি নজরদারি দিতে হবে।

সভায় আরও বক্তব্য দেন নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবদুস সামাদ, বিআইডব্লিউটিসির চেয়ারম্যান প্রণয় কান্তি বিশ্বাস, বিআইডব্লিউটিএর চেয়ারম্যান কমোডর এম মাহবুব উল ইসলাম, নৌপরিবহন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কমোডর সৈয়দ আরিফুল ইসলাম, নৌ পুলিশের ডিআইজি মো. আতিকুল ইসলাম, কোস্টগার্ডের ঢাকা জোনের কমান্ডার রেজাউল হাসান, বিভিন্ন জেলার জেলা প্রশাসক এবং পুলিশ সুপার, লঞ্চমালিক শহীদুল ইসলাম ভূঁইয়া, বদিউজ্জামান, নৌযান শ্রমিকনেতা মো. শাহ আলম, জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।

শেয়ার করুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৩ - ২০২১
 
themebaishwardin3435666