ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ০৮:৪৩ পূর্বাহ্ন

রূপপুর এনপিপির প্যাসিভ কোর ফ্লাডিং সিস্টেম নির্মাণ সম্পন্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের দ্বিতীয় ইউনিটের জন্য প্যাসিভ কোর ফ্লাডিং সিস্টেমের হাইড্রো একুম্যুলেটরগুলোর প্রথম বডি-পার্টসগুলোর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের দ্বিতীয় ইউনিটের জন্য প্যাসিভ কোর ফ্লাডিং সিস্টেমের হাইড্রো একুম্যুলেটরগুলোর প্রথম বডি-পার্টসগুলোর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের নিরাপত্তা ব্যবস্থায় প্যাসিভ কোর ফ্লাডিং সিস্টেম একটি গুরুত্বপূর্ণ উপাদান।

রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় পরমাণু শক্তি করপোরেশনের (রোসাটম) মেশিন প্রস্তুতকারী ডিভিশন এটমএনার্গোমাসের এমটি প্রতিষ্ঠান এইএম-টেকনোলজির পেত্রাজাভোদস্ক শাখায় এগুলোর নির্মাণ কাজ চলছে। বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) রোসাটমের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

রিয়্যাক্টরের প্রাইমারি সার্কিটে কোনো বড় ধরনের কুল্যান্ট দুর্ঘটনা ঘটলে তাপ অপসারণের কাজে প্যাসিভ কোর ফ্লাডিং সিস্টেমের ভূমিকা রয়েছে। এ সিস্টেমটিতে পরু দেয়ালযুক্ত আটটি হাইড্রো একুম্যুলেটর থাকবে, প্রতিটির ধারণক্ষমতা ১২০ কিউবিক মিটার। রিয়্যাক্টর চলাকালীন হাইড্রো একুম্যুলেটরগুলো বোরিক অ্যাসিড দ্রবণ দিয়ে পূর্ণ থাকে এবং এই দ্রবণ রিয়্যাক্টর কোরের শীতলীকরণে কাজ করে।

প্রতিটি হাইড্রো একুম্যুলেটরের বডিতে তিনটি শেল বা দেয়াল থাকে, প্রতিটির ওজন ১৫ দশমিক ৫ টন। অন্যান্য যন্ত্রাংশসহ একটি হাইড্রো একুম্যুলেটরের ওজন প্রায় ৭৭ টন। রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের রিয়্যাক্টর হল এবং টার্বাইন আইল্যান্ডের অধিকাংশ যন্ত্রপাতি প্রস্তুত করছে এটমএনার্গোমাস। প্রতিষ্ঠানটি রিয়্যাক্টর, বাষ্প জেনারেটর, পাম্প এবং হিট-এক্সচেঞ্জ মেশিনারি প্রস্তুত করে থাকে।

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের প্রতিটি ১২০০ মেগা-ওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন দু’টি ইউনিট থাকবে। প্রতিটি ইউনিটে থাকছে সক্রিয় এবং স্বয়ংক্রিয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা। বাংলাদেশের প্রথম এ পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে রাশিয়ায় ডিজাইন করা ৩+ প্রজন্মের ভিভিইআর ১২০০ রিয়্যাক্টর স্থাপন করা হবে।

 

শেয়ার করুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৩ - ২০২১
 
themebaishwardin3435666
%d bloggers like this: