ঢাকা রবিবার, ১৩ জুন ২০২১, ০৮:৫৩ পূর্বাহ্ন

মে দিবসে ঈশ্বরদীতে শ্রমিক লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ

ঈশ্বরদীনিউজ২৪.নেট, প্রতিবেদন
  • প্রকাশিত: বুধবার, ১ মে, ২০১৯
দুই গ্রুপের নেতা-কর্মীদের মধ্যে কথাকাটাকাটি-হাতাহাতি ও কিলঘুসির ঘটনা ঘটে।

 

শহর প্রতিনিধি: মে দিবস উপলক্ষে রেলওয়ে শ্রমিক লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ, ধাওয়া- পাল্টা ধাওয়া ঘটনা ঘটেছে। এই ঘটনায় উভয় গ্রুপের দুইজন আহত হয়েছেন। আহতরা হলেন- সাগর হোসেন ও রোকনুজ্জামান রোকন। তাঁরা উভয়ই রেলওয়ে শ্রমিক লীগ ঈশ্বরদী শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক।

বুধবার (১ মে) দুপুরে ঈশ্বরদী রেলওয়ে জংশন স্টেশনের দক্ষিন সুইচ ক্যাবিন সংলগ্ন সেতু প্রকৌশলীর অফিস চত্ত্বরের সামনে এসব ঘটনা ঘটে।

রেলওয়ে শ্রমিক লীগের একাধিক সূত্র মতে, রেলওয়ে শ্রমিক লীগ ঈশ্বরদী শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক সাগর হোসেন কমিটির সভাপতি রফিকুল হাসান স্বপনের সঙ্গে পরামর্শে র‌্যালিতে আসা শ্রমিক লীগের একাংশের জন্য খাওয়ার আয়োজন করেন। র‌্যালিতে গেঞ্জি বিতরণ করেন। এতে কমিটির সাধারণ সম্পাদক আসলাম উদ্দিন খান মিলন গ্রুপের কাউকে দাওয়া দেয়নি। তাদেরকে শ্রমিক লীগ লেখা গেঞ্জিও না দেওয়ায় অসন্তোষের সৃষ্টি হয়। উভয় গ্রুপের মধ্যে রেশারেশি শুরু হয়।

এরপর সাধারণ সম্পাদক আসলাম উদ্দিন তাঁর সমর্থকদের নিয়ে ঘটনাস্থল ত্যাগ করার সময় সভাপতি স্বপনের সমর্থক সাগর লোকজনসহ লাঠিসোটা নিয়ে তাদের ওপর হামলা করে। এতে আসলাম উদ্দিন গ্রুপের সাংগঠনিক সম্পাদক রোকনুজ্জামান রোকন রক্তাক্ত জখম হয়। আর কিল ঘুষির আঘাতে আহত হন সভাপতি স্বপন গ্রুপের সাংগঠনিক সম্পাদক। তাদের উভয়কে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

সূত্রগুলো আরো জানান, সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাশী এক নেতার নেতৃত্বে সাগর গ্রুপিং সৃষ্টি করতে ভুরিভোজের আয়োজন করেন। গেঞ্জি বিতরণ করেন। এই বিষয়টি প্রকাশ হওয়াতেই দুই ভাগে নেতাকর্মীরা বিভক্ত হয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন।

রেলওয়ে শ্রমিক লীগ ঈশ্বরদী শাখার সাধারণ সম্পাদক আসলাম উদ্দিন খান জানান, কমিটির আমি সাধারণ সম্পাদক। আমাকে না জানিয়েই সাংগঠনিক সম্পাদক শুধুমাত্র সভাপতিকে জানিয়ে ভ‚রিভোজের আয়োজন করেন। নিজের সঙ্গে থাকা সমর্থকদের মাঝে শ্রমিকলীগের গেঞ্জি বিতরণ করেন। এতে কমিটির অন্যান্যদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়। ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পরে সাগর লোকজনসহ লাঠিসোটা নিয়ে রোকনুজ্জামানসহ অন্যান্যদের ‌ওপর হামলা করে। এতে রোকনুজ্জামান রক্তাক্ত জখম হয়েছে। তবে সিনিয়র নেতাদের হস্তক্ষেপে বিষয়টি সমাধান করা হয়েছে বলে দাবি করেন এই নেতা।

রেলওয়ে শ্রমিক লীগ ঈশ্বরদী শাখার সভাপতি রফিকুল হাসান স্বপন জানান, কোনো গ্রুপিং নেই। মে দিবস উপলক্ষে সবাই এক সঙ্গে র‌্যালি করেছেন। ভুরিভোজের আয়োজন ও গেঞ্জি বিতরণ রেল শ্রমিক লীগের আয়োজনে হয়নি। সাধারণ শ্রমিকদের পক্ষ থেকে করা হয়েছিল। তাই আমি সেই ভুরিভোজে যোগ দিয়েছিলাম মাত্র।

লাঠিসোটা নিয়ে ধাওয়া করে রেল শ্রমিক লীগ
শেয়ার করুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৩ - ২০২১
 
themebaishwardin3435666